,

বিশ্ব মা দিবস উদযাপন উপলক্ষ্যে আয়োজিত আলোচনায় সভায় উপস্থিত অতিথিবৃন্দ

বানিয়াচংয়ে বর্ণাঢ্য আয়োজনে বিশ্ব মা দিবস পালিত

বানিয়াচং প্রতিনিধি : বানিয়াচংয়ে যথাযোগ্য মর্যাদায় বিশ্ব মা দিবস পালিত হয়েছে। বিশ্ব মা দিবস উপলক্ষে গতকাল রবিবার উপজেলা পরিষদ সভাকক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। উপজেলা নির্বাহী অফিসার পদ্মাসন সিংহ’র সভাপতিত্বে এতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা কুহেলিকা সরকার। উপজেলা যুব উন্নয়ন অফিসার মোঃ জাফর ইকবাল চৌধুরীর সঞ্চালনায় এতে আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা সমবায় কর্মকর্তা মোহাম্মদ ইকবাল হোসেন, বানিয়াচং প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক দৈনিক মানব জমিন ও হবিগঞ্জ এক্সপ্রেস পত্রিকার স্টাফ রিপোর্টার মখলিছ মিয়া, তথ্য কর্মকর্তা (তথ্য আপা) নুপুর রানী মোহন্ত, তথ্য আপা সহকারী নাঈমা আক্তার প্রমুখ। সভাপতির বক্তব্য ইউএনও পদ্মাসন সিংহ বলেন, মা-এর জন্য নিদিষ্ট কোন দিন নয় বরং প্রতিটি দিনই মা-দিবস। যাদের জন্য আমরা পৃথিবীতে এসেছি তাদের সারা জীবন ভালোবাসতে হবে। প্রতিটি সন্তানের দায়িত্ব মা-বাবার সেবা করা। মা সন্তানের জন্য একটা বড় নিয়ামত। দুনিয়াতে মা এর সমতুল্য কিছুই নেই। যার মা নেই সেই জানে দুনিয়াতে সে কত অসহায়। মা থাকা মানে জীবনে সব কিছু পাওয়া। যার মা আছে তার কোন কিছুই অপূর্ণ থাকে না। মা হচ্ছে স্বর্গ। যাদের মা মারা গেছে তারা আর কখনও মাকে দেখার সুযোগ পাবেনা। মা বলে ডাকতে পারবে না। যতো সম্পদের মালিক হন না কেন মায়ের কাছে সকল সম্পদ মূল্যহীন। উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা কুহেলিকা সরকার স্বাগত বক্তব্যে বলেন, যাদের মা আছে তারা মাকে ভালোবাসুন। সব সময় মায়ের খোঁজ রাখুন। জীবন দিয়ে হলেও মায়ের সেবা করতে হবে। সন্তানের কিছু হলে সবার আগে মা জানতে পারে। মা না খেয়ে সন্তাকে খাওয়ায়। অথচ সেই মাকে অনেকে দেখতে পারেনা। এখনও সময় আছে যাদের মা-বাবা আছে তারা তাদের পাশে দাঁড়ান। অনেক কষ্ট করে প্রতিটি মা তাদের ছেলে-মেয়েদের বড় করেন। তাদের ঋণ কোন ভাবেই শোধ করা যাবে না। প্রতিটি মা-বাবা সন্তানের দিকে চেয়ে থাকে। উক্ত অনুষ্ঠানে বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা সহ মা এবং সন্তানরা উপস্থিত ছিলেন। আলোচনা সভার আয়োজন করেন উপজেলা প্রশাসন ও মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তার কার্যালয়। অনুষ্ঠানটির সার্বিক সহযোগিতায় ছিলেন মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তার কার্যালয়ের হাবিবুর রহমান ও নূর মোহাম্মদ আলী।

     এই বিভাগের আরো খবর